ভাইরাল হলেন ডিআইইউ ছাত্রী ফারহানা আফরোজ

অভিনব সব কাণ্ড ঘটিয়ে অনেকেই সে সবের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দিয়ে সবার দৃষ্টি কাড়ার চেষ্টা করেন। কেউ কেউ সফলও হন। তাদের সেই ভিডিও ভাইরাল হলে ব্যাপক হৈচৈ পড়ে যায়।গত বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট ২০২০) এমনই এক ব্যতিক্রমী ঘটনার জন্ম দিলেন যশোরের মেয়ে ফারহানা আফরোজ। তিনি গায়েহলুদের দিনে শহরজুড়ে বন্ধুবান্ধব ও সাথিদের নিয়ে বাইক র‌্যালি (মোটরসাইকেল শোভাযাত্রা) করলেন। ব্যতিক্রমী এ আয়োজন করে ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছেন।


ফারহানা জানান, সবাই নেচেগেয়ে উদযাপন করেছি গায়েহলুদের অনুষ্ঠান। আমি যেহেতু বাইক চালাতে পারি তাই বাইক চালিয়ে অনুষ্ঠান করেছি। ব্যতিক্রমী কিছু করার ভাবনা থেকেই এমন আয়োজন। এটি আমার নিজস্ব উদ্যোগে করেছি। অনেক আনন্দ করেছি বন্ধুবান্ধব ও সাথিরা।

অভিনব সব কাণ্ড ঘটিয়ে অনেকেই সে সবের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দিয়ে সবার দৃষ্টি কাড়ার চেষ্টা করেন। কেউ কেউ সফলও হন। তাদের সেই ভিডিও ভাইরাল হলে ব্যাপক হৈচৈ পড়ে যায়।গত ১৩ আগস্ট এমনই এক ব্যতিক্রমী ঘটনার জন্ম দিলেন যশোরের মেয়ে ফারহানা আফরোজ। তিনি গায়েহলুদের দিনে শহরজুড়ে বন্ধুবান্ধব ও সাথিদের নিয়ে বাইক র্যা লি (মোটরসাইকেল শোভাযাত্রা) করলেন। ব্যতিক্রমী এ আয়োজন করে ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছেন।

ফারহানা আফরোজের বাড়ি যশোর সার্কিট হাউজের সামনে। যশোর সরকারি বালিকা বিদ্যালয় থেকে ২০১১ সালে এসএসসি ও ২০১৩ সালে যশোর আব্দুর রাজ্জাক কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেন। এখন ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি (ডিআইইউ) থেকে এইচআর-এ এমবিএ করছেন ফারহানা।
ফারহানা আফরোজ জানালেন, ২০০৭ সাল থেকে তিনি বাইক চালান। বিয়ের অনুষ্ঠানকে ব্যতিক্রমী করতে ভিন্নধর্মী ভাবনা তার মাথায় ছিল। এই ভাবনা থেকেই তিনি এমন আয়োজন করেছেন। বিয়ে, গায়েহলুদের অনুষ্ঠানে সবাই নেচেগেয়ে উৎসব করেছেন। আমি যেহেতু বাইক চালাতে পারি; তাই বাইক চালিয়েই গায়ে হলুদ ও বিয়ের অনুষ্ঠানে এন্ট্রি দেয়ার পরিকল্পনা করেছি।


গত ১৩ আগস্ট ছিল ফারহানার গায়েহলুদ। পর দিন ১৪ আগস্ট বিয়ে। বর হাসনাইন রাফি পাবনার কাশিনাথপুরের বাসিন্দা। টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ার হাসনাইন রাফি ঢাকার গাজীপুরে কর্মরত।
এ বিয়ের অনুষ্ঠান ক্যামেরায় ধারণ করা নাহরুল হায়াত তরু (খান সাহেব) জানালেন, তিনি দীর্ঘদিন ধরেই ক্যামেরায় কাজ করছেন। কিন্তু এমন ব্যতিক্রমী বিয়ে-গায়েহলুদের আয়োজন দেখেননি। এই গায়েহলুদের ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ায় অনেকেই তার কাছে ফোন করছেন।